Tollywood

মন থেকে ভেঙে পড়েছেন, সেইসঙ্গে প্রবল কষ্ট শরীরে, চোখে দেখা যাচ্ছে না মিমি চক্রবর্তীকে!

জনপ্রিয় অভিনেত্রী এবং তৃণ মূল সাংসদ মিমি চক্রবর্তীর সময়টা একেবারেই ভালো যাচ্ছে না। কসবা অঞ্চলে ভ্যাকসিন নিতে গিয়ে ভুয়ো ভ্যাকসিনের স্বীকার হয়েছেন তিনি। শোনা গেছে পাউডারের সাথে কেমিক্যাল মিশিয়ে ভ্যাকসিন দেওয়া হয়। ফোনে মেসেজ না আসায় সন্দেহ হয় তার। অবশেষে পুলিশি তৎপরতায় গ্রেফতার হয় ভুয়ো আইএএস অফিসার দেবাঞ্জন দেব।নিজেকে আই এ এস বলে অফিসার বলে পরিচয় দিয়ে ভ্যাকসিন ক্যাম্প চালাচ্ছেন তিনি।এই ক্যাম্প থেকেই ভ্যাকসিন নেন মিমি।

পরবর্তীকালে জানা যায় এই ক্যাম্পের জন্য কোনো অনুমতি ছিল না পুরসভার। অনেকেই এই ক্যাম্প থেকে টিকা নেন, তারাও এই খবর প্রকাশ্যে আসার পর আতঙ্কিত হয়ে পরেন, তবে ভ্যাকসিন নেওয়ার পরে তারা কেউ অসুস্থ হননি। কিন্তু মিমি চক্রবর্তী তখন অসুস্থ না হলেও শনিবার থেকে শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে থাকে।সেদিন ভোর রাত থেকেই শুরু হয় পেটের যন্ত্রণা এবং শরীর থেকে ঘাম ঝরতে থাকে।যদিও অভিনেত্রীর আগে থেকেই গলব্লাডারে সমস্যা ছিল। সেই থেকেই সময়টা একেবারেই ভালো যাচ্ছে না তার। তবে এখন কেমন আছেন মিমি?

সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজের কথা জানালেন তারকা অভিনেত্রী। প্রতিটা ক্ষেত্রে খারাপ সময় মানুষের জীবনে একটা কঠিন পরীক্ষার মতই ভয়ানক। সেই অভিজ্ঞতা ভাগ করে নিলেন অনুরাগীদের সাথে। এমনিতে তার স্বাস্থ্য নিয়ে সংশয়ে ছিলেন সকলেই।

ইনস্টাগ্রামে এক তোড়া লিলি ফুলের ছবি পোস্ট করে তিনি চিঠির আকারে লেখেন “আপনারা যদি জানতে চান খারাপ সময় ঠিক কেমন হয়? তাহলে বলব, আমি নিজেই এর মধ্যে দিয়ে গেলাম। কটা দিন শারীরিক, মানসিক যন্ত্রণার মধ্যে দিয়ে কাটালাম। যদি আপনারা আমার জন্য প্রার্থনা করে থাকেন তাহলে ধন্যবাদ, না করে থাকলেও ধন্যবাদ। সবকিছুর জন্যই ধন্যবাদ। আপনারা আমাকে আগের থেকে আরও শক্তিশালী করে তুুলেছেন। সকলের জন্য ভালোবাসা রইল।”

অসুস্থ অবস্থায় চিকিৎসকরা তাকে নার্সিং হোমে ভর্তির কথা বলেন, কিন্তু তিনি রাজি হননি, বাড়িতেই থাকতে চান। এখন অনেকটা সুস্থ আছেন তিনি, সোশ্যাল মিডিয়ায় একথা নিজেই জানিয়েছেন তিনি।

 

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Mimi (@mimichakraborty)

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button