রাজনীতিতে বাছ-বিচার আছে পরমব্রতর, তবে নিজেকে বাম মনস্কই বললেন অভিনেতা

বাংলা বিনোদন ইন্ডাস্ট্রিতে প্রায় কুড়ি বছর পার করে ফেললেন অভিনেতা পরমব্রত চট্টোপাধ্যায়। ছোট পর্দা থেকে বড় পর্দা সবেতেই সাবলীল তিনি। তবে তাঁর মা যতটা তার সাফল্য দেখে যেতে পারলেন, তাঁর বাবা ততটা পারলেন না এটাই দুঃখ নায়কের। এক সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে সাক্ষাৎকারে এমনটাই বললেন অভিনেতা। এর পাশাপাশি আবার রাজ্য রাজনীতি নিয়ে মুখ খুললেন তিনি।

সাক্ষাৎকারে পরমব্রত জানান যে তিনি কোনদিন সক্রিয় রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলেন না। তবে রাজনৈতিক দিক থেকে তাঁর কিছু বাছ-বিচার রয়েছে যা তিনি কখনোই লুকিয়ে রাখতে পছন্দ করেন না বা কখনও লুকিয়ে রাখেননি। রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার মত সময়ও হতে নাকি তাঁর হাতে নেই এমনটাই বললেন তিনি। এছাড়া বলেন যে অতি দক্ষিণপন্থী রাজনীতির সমালোচক তিনি বরাবর। সে জায়গা থেকে, বর্তমানে দেশে যে দলকে বিজেপি, আরএসএস-এর বিরুদ্ধে সব থেকে বড় বিরোধী শক্তি বলে মনে হবে তাঁর, তিনি তাদের দলেই থাকবেন। আর সেই দল যে কোন দল হতে পারে। নির্বাচনের আগেও নাকি তাঁর তেমনটাই অবস্থান ছিল। তবে নিজেকে বাম মনস্ক বলে পরিচয় দিলেন তিনি। কিন্তু এটাও পরিষ্কার বলে দিলেন এর মানে এটা নয় যে তিনি সিপিএমকে সমর্থন করেন।

Param Rudranil

অন্যদিকে রাজনীতির দৌলতে তাঁর সঙ্গে বন্ধু ও অভিনেতা রুদ্রনীলের যে দূরত্ব তৈরি হয়েছে তা নিয়ে কথা বললেন। দেখা হলে হয়তো কুশল বিনিময় তাঁরা করবেন কিন্তু মনের দিক থেকে যেটা ছিল সেটা পরমব্রত নাকি আর অনুভব করেন না। আর এর কারণটা পুরোপুরি রাজনীতি। ২০১২ সাল থেকে এই দুই বন্ধুর সম্পর্কে চিড় ধরেছে সেটাও বলে দিলেন তিনি।

Back to top button