Hollywood

3D গ্লাস পরলেই বিকট দৃশ্য স্ক্রীনে! Doctor Strange – এর ফার্স্ট শোয়ে ভাঙচুর মধ্যমগ্রামের হলের ভিতর

‘ইন দ্য মাল্টিভার্স অফ ম্যাডনেস ‘ এর ফার্স্ট ডে ফার্স্ট শোয়ে ধুন্ধুমার কাণ্ড বেধে গেল মধ্যমগ্রামের একটি সিনেমা হলে। ভেঙে দেওয়া হলো হলে দরজা এবং স্ক্রীন। এই ঘটনাটি মধ্যমগ্রামের আইনক্সের। প্রেক্ষাগৃহে শুক্রবার সকালে ৭.১৫ টা নাগাদ যান মার্ভেলের টি শার্ট পরিহিত ভক্তরা।

শো শুরু হওয়ার পর মাত্র ১০ মিনিট ঠিকঠাক চলে স্ক্রিনে। তারপরেই শুরু হলো যত ঝামেলা। থ্রিডি গ্লাস ঝাপসা হতে থাকে। হঠাৎ করে বন্ধ হয়ে যায় ছবিটি। দর্শকের মধ্যে কেউ কেউ ভাবে শুধুমাত্র তাদের থ্রিডি গ্লাস এর সমস্যা হচ্ছে কিন্তু পরে বোঝা যায় সকলেরই একই সমস্যা। তারপরেই উত্তেজনার সৃষ্টি হয় সিনেমাহলের মধ্যে।

এক দর্শক জানিয়েছেন সমস্যার কথা বুঝতে পেরে প্রেক্ষাগৃহে আসেন টেকনিক্যাল টিমের সদস্যরা। তারপরে আবার চালু হয় সে আবার মিনিট দশেক পরে একই সমস্যা হয়।

দর্শকদের কিছুক্ষণ অপেক্ষা করতে বলা হয় কিন্তু দু ঘন্টা কেটে যাবার পরেও শুরু হয়নি শো। সকাল সকাল টিকিট কেটে শো দেখতে আসার কী মানে যদি এমন বিড়ম্বনা হয়? এরপরই ক্ষোভে ফেটে পড়ে দর্শকরা এবং ঝামেলার সৃষ্টি হয়।

আড়াইশো টাকার টিকিট কেটে ওই হলে মার্ভেলের ছবি দেখতে আসে বহু মানুষ। কিন্তু হলের তরফ থেকে এই টাকা ফিরিয়ে দেওয়ার কথা বলা হয়। দর্শকরা বলে অন্তত 2Dতে ইংলিশ শো দেখাতে। আর বাকি টাকা ফিরিয়ে দেওয়ার কথা বলা হয়। এতে রাজি হয় কর্তৃপক্ষ। কিন্তু ঐ স চালানোর পরেও আবার বন্ধ করে দেওয়া হয় কারণ একই সমস্যা হচ্ছে স্ক্রিনে।

পুরো টাকা ফিরিয়ে দেবে বলে জানায় কর্তৃপক্ষ। কিন্তু দর্শক রাজি হয়নি। এরপরে ঘটনাস্থলে যেতে হয় হলের ম্যানেজারকে। দুজন মহিলাকে পাঠানো হয় ওই মহিলা ম্যানেজারের সঙ্গে কথা বলার জন্য। দর্শকদের দাবি ছিল 2D তে দেখিয়ে 3D-র বাড়তি টাকা ফিরিয়ে দেওয়ার। কর্তৃপক্ষ জানায় 2D- র ব্যবস্থা করা সম্ভব।

তবে দর্শক কেন রাজি হবে? তারপরে নাকি কথা কাটাকাটি শুরু হয় এবং ওই ম্যানেজার গালাগালি করা শুরু করেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে ভাঙচুর শুরু হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button