ছেলের ছয় মাসের জন্মদিনে সকলকে উপহার দিলেন শ্রেয়া, প্রকাশ্যে আনলেন ছোট্ট দেবয়ানের মিষ্টি ছবি 

চলতি বছরের ২২শে মে তারিখে গায়িকা শ্রেয়া ঘোষালের ঘর আলো করে আসে তাঁর পুত্র সন্তান। তাঁর নাম দেওয়া হয় দেবয়ান। তবে ছেলের মুখ কোনওদিন দেখান নি শ্রেয়া। তবে এবার ছেলের ছয় মাসের জন্মদিনে ছেলের মিষ্টি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করলেন শ্রেয়া।

এই ছবির ক্যাপশন শ্রেয়া লিখেছেন দেবয়ানের বয়ানে। দেবয়ানই যেন বলছে, “হাই, আমি দেবয়ান, আজ আমার ছয় মাস পূর্ণ হল। এই মুহূর্তে আমি আমার চারপাশে যা যা হচ্ছে তা নিয়ে ভীষণ ব্যস্ত। পছন্দের গান শুনছি। বই পড়ছি। কত ছবি সেখানে। মজার মজার জোক শুনে হাসছি। আর মায়ের সঙ্গে গভীর সব আলোচনা করছি। মা আমাকে বোঝে। তোমাদের সবার আশীর্বাদের জন্য থ্যাঙ্ক ইউ”। শ্রেয়ার এই একরত্তিকে দেখে উত্তেজনা যেন কিছুতেই ধরে রাখতে পারছেন না নেটিজেনরা।Shreya post

শ্রেয়া বরাবরই ব্যক্তিগত জীবন তেমন সামনে আনেন না। শিলাদিত্যর সঙ্গে দীর্ঘ বন্ধুত্বের খবর তাঁর প্রিয়জনের বাইরে খুব একটা কেউ জানতেন না। বাঙালি মতে বিয়ে করেছিলেন এই জুটি। বিয়ের অনুষ্ঠানে নিমন্ত্রিত ছিলেন ঘনিষ্ঠ বন্ধু এবং আত্মীয়রা। বিয়ে করার খবরও সোশ্যাল ওয়ালেই শেয়ার করেছিলেন শ্রেয়া।

আবার এই একই ভাবে মা হওয়ার খবরও সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছিলেন শ্রেয়া। পুত্রের জন্মের পর তার নামের বানান নিয়ে বেশ বিভ্রান্তি শুরু হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। হিন্দি কিংবা ইংরেজি ভাষায় বানান নিয়ে সমস্যা না হলেও বাংলায় কী হতে পারে শ্রেয়ার ছেলের নামের বানান, তা নিয়ে বেশ ধন্দে পড়ে গিয়েছিলেন এক নেটিজেন।

টুইট করে তিনি লেখেন, “বাংলায় নামের উচ্চারণ কেউ বলতে পারছে না”। এরই সঙ্গে জুড়ে দেন দেবয়ান নামটির চার রকম বানান— ১. দেবায়ন ২. দেবযান ৩. দেবয়ান ৪. দেব্যান। সেই সমস্যার নিষ্পত্তি অবশ্য ঘটিয়েছিলেন স্বয়ং মা শ্রেয়াই। এই টুইটটিকে রিটুইট করে তিনি লিখেছিলেন, “আমার প্রিয় সমস্ত বাঙালি অনুরাগীদের বলছি, বাংলায় Devyaan-এর নামের সঠিক বানান – দেবয়ান”।

বলে রাখি, ২০১৫ সালে শিলাদিত্য মুখোপাধ্যায়কে বিয়ে করেন শ্রেয়া ঘোষাল। এরপর ৬ বছর সুখের সংসার করেছেন দুজনে। এরপর এবছরেই মা হন তিনি। মা হবার ১১ দিনের মাথায় ছেলের নাম সকলকে জানান গায়িকা। সেই সময় কোলে ছেলে থাকলেও ছেলের মুখ দেখা যায়নি।

Back to top button