Tollywood

সোনার সংসারে আদৃতের গাওয়া আরো গান ছিল, ইচ্ছা করে কেটে বাদ দিয়েছে জি বাংলা! সোশ্যাল মিডিয়ায় রেগে ফায়ার সিডি বয়ের ভক্তরা,দেখুন ডিলিটেড ভিডিও

গতকাল বিকালে অনুষ্ঠিত হয়েছে জি বাংলার বার্ষিক অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠান জি বাংলা সোনার সংসার। নিজেদের সমস্ত প্রিয় সিরিয়ালের চরিত্রদের একসাথে দেখতে পেয়েছে বাঙালি, এতেই তারা খুশি। কিন্তু কোথাও গিয়ে ক্ষোভ জমেছে মিঠাই ভক্তদের।

কিন্তু কেন? মিঠাই পরিবার তো কালকে সব থেকে বেশি অ্যাওয়ার্ড পেয়েছে, 17 খানা। তারপরও মিঠাই ভক্তদের ক্ষোভের কারণ কী? আমরা সকলেই জানি সিড অর্থাৎ আদৃত রয় খুব ভালো গান করেন। আমরা মাঝে মধ্যেই আদৃতের বিভিন্ন ভিডিও পেয়েছি সোশ্যাল মিডিয়ায় যেখানে তাকে গিটার বাজিয়ে গান করতে দেখা গেছে।গতকাল আমরা দেখেছি এক আজনাবি হাসিনা সে মঞ্চে গেয়েছে সে, সেইসঙ্গে মিঠাই তার চারিদিকে ঘুরে নেচেছে।

আসলে জানা গেছে, সিডের এই একটা মাত্র পারফরমেন্সই ছিলনা জি বাংলায়। সে আরও কয়েকটি গান গেয়েছিল তার মধ্যে জাভেদ আলীর সঙ্গে মৌলা মৌলা ডুয়েট করেছে। সেইসঙ্গে গিলি গিলি আক্কা গেয়েছে, এছাড়া নিজের কম্পোজ করা একটা গান গেয়েছে। অর্থাৎ সিডি বয় নাচ করেনি ঠিকই কিন্তু নিজের পছন্দের জায়গা গানটা সে কিন্তু বেশ অনেককটাই গেয়েছিল। এর আগে বিভিন্ন ফ্যান ক্লাবের তরফ থেকে সেই ভিডিও গুলো পোস্ট করা হয়েছিল, সাধারণ মানুষ আশা করেছিলেন যে জি বাংলা নিশ্চয়ই সেগুলো দেখাবে।

কিন্তু বাস্তবে দেখা গেল চার ঘন্টার প্রোগ্রামে সিডকে বেশি দেখানোই হলো না। শুধুমাত্র এক আজনাবি হাসিনা সে গানটি গাওয়ার সময়ের দৃশ্যটুকু রাখা হয়েছে বাকি সব এডিট করে কেটে বাদ দিয়ে দেওয়া হয়েছে। আর এতেই রেগে ফায়ার সিডি বয়ের ভক্তরা।

ভিডিও ক্রেডিট: Bikash Entertainment House.

সকাল থেকেই ফ্যান ক্লাব জুড়ে চলছে জি বাংলার সমালোচনা। সিদ্ধার্থের ভক্তরা বলছেন জিবাংলা আদৃত রয়কে একদম সহ্য করতে পারে না। সেই জন্য আদৃতের গাওয়া গান কেটে বাদ দিয়ে দিল। স্বাভাবিকভাবেই তারা হতাশ।

তারা মনে করছে যে সিদ্ধার্থকে ইচ্ছা করেই গুরুত্ব দেওয়া হয়নি।যেহেতু সে আর অন্য কয়েকজন তারকার মতো লাফালাফি করছিল না, শান্ত ভাবে বসে ছিল এবং ডান্সও করেনি তাই বোধ হয় তাকে গুরুত্ব দেওয়া হয়নি।

জি বাংলার তরফ থেকে এখনো পর্যন্ত এই বিষয়ে কোনো বিবৃতি রাখা হয়নি তবে সোশ্যাল মিডিয়ায় বয়কট জি বাংলা আন্দোলন শুরু হয়ে গেছে সিদ্ধার্থ ভক্তদের তরফ থেকে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button