Tollywood

‘এ যেন পুরো আমার বাবা!’, ছেলে প্রসেনজিতের আয় খুখু আয় দেখে আবেগে খোলা চিঠি লিখলেন বাবা বিখ্যাত অভিনেতা বিশ্বজিৎ চ্যাটার্জি!

গতকাল বড় পর্দায় মুক্তি পেলো প্রসেনজিৎ অভিনীত সিনেমা আয় খুকু আয়। মেয়ে বুড়ির চরিত্রে দিতিপ্রিয়া রায় এবং তার বাবার চরিত্রে অভিনয় করছেন বুম্বাদা অর্থাৎ প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। বাবা-মেয়ের সাধারণ মধ্যবিত্ত সম্পর্কের গল্প বলবে এই সিনেমা।

ছবিতে নির্মল মন্ডল একজন হকার যার চরিত্রে অভিনয় করছেন প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। পর্দায় ফুটে উঠেছে বাবা -মেয়ের নানা সুন্দর মুহূর্ত যা প্রাচুর্য অথবা জাকজমকপূর্ণ না হলেও তাতে রয়েছে ভালোবাসা, শান্তি সর্বোপরি প্রতিটি সাধারণ বাড়ির মেয়ে ও বাবা এই মুহূর্তগুলো সঙ্গে নিজেদের জড়িয়ে ফেলতে পারবে। ছেলের এই সিনেমাকে কেন্দ্র করে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়লেন বাবা এবং অভিনেতা বিশ্বজিৎ চট্টোপাধ্যায়। লিখলেন ছেলেকে খোলা চিঠি।

এক্কেবারে ছাপোষা নিম্নবিত্ত পরিবারের সেই গন্ধ ফিরে পেয়েছেন বিশ্বজিৎ। তিনি সিনেমা দেখেছেন। তার পর লিখলেন বাবা এবং মেয়েকে যেভাবে দেখেছেন তাতে বাস্তবে ছাপোষা বাবা ও সন্তানের সম্পর্কএমন টাই হয় বলে মনে করেন তিনি। ছেলেকে দেখে প্রথমে চমকে গিয়েছিলেন বড় পর্দায়। কারণ প্রসেনজিতকে দেখতে নাকি হুবহু বিশ্বজিতের বাবা অর্থাৎ চিকিৎসক রঞ্জিত কুমার চট্টোপাধ্যায়ের মত লাগছে। জানিয়েছেন বাবা এবং ছেলের জন্মদিন একই দিনে ৩০ সেপ্টেম্বর।

অন্যদিকে এই সিনেমায় বাবার চরিত্র করতে গিয়ে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের যে প্রস্থেটিক মেকাপ করানো হয়েছে তা নিয়ে প্রশংসা করলেন বিশ্বজিৎ। তিনি বললেন ঝলক বলছে এই সিনেমার মধ্যে দিয়ে প্রসেনজিৎ সুস্থ সামাজিক পরিবারের গল্প বলতে চেয়েছেন সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে চলতে যা এখন ফ্যাকাসে হয়ে গেছে।

ভালো বাণিজ্যিক ছবির সব উপাদান রয়েছে এমনটাই মনে করেন বিশ্বজিৎ। তিনি ছেলে বুম্বার অভিনয়ের ভক্ত, আরো একবার জানিয়ে দিলেন সেটা। তিনি দেখেছেন প্রসেনজিৎ যে চরিত্রগুলি করেন সেগুলো নিয়ে তিনি নিজেও অত ভালো করে ভাবতে পারেন না।

অন্যদিকে বলেছেন বাংলা ছবির নতুন ধারার পথপ্রদর্শক হয়ে উঠবে আয় খুকু আয় সিনেমাটি। বিশ্বজিৎ জানিয়েছেন প্রসেনজিতের আন্টি, বোন সবাই ছবির প্রশংসা করেছেন। সম্ভবী প্রসেনজিতের অভিনয় দেখে উচ্ছ্বসিত। শুভকামনা জানিয়েছেন।

বিশ্বজিৎ মন থেকে প্রার্থনা করেছেন এই ছবির সাফল্যের জন্য। সঙ্গে তিনিও জানালেন যে কলকাতায় এখন যেতে পারবেন না। তাই মুম্বাইয়ে সিনেমাটি মুক্তি পেলে অবশ্যই দেখবেন। কথা দিলেন ছেলেকে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button