Bangla Serial

Serial End: TRP-তে জায়গা না পাওয়ায় মাস ঘুরতেই টাটা বাইবাই করতে হচ্ছে সিরিয়ালকে! তবুও কেউ কেউ রেকর্ড করে লম্বা রেসের ঘোড়া! রইল এমনই কিছু নাম

বছর প্রায় শেষের পথে। আর কটা দিন মাত্র তারপরেই পড়বে নতুন বছর। কিন্তু চলতি বছরটা একেবারেই ভালো যায়নি বাংলা টেলিভিশনের জন্য। একের পর এক বহু জনপ্রিয় ধারাবাহিক বন্ধ হয়ে যেতে দেখেছে দর্শক। তার মধ্যে কিছু ধারাবাহিকের আয়ু ছিল মাত্র তিন মাস। আবার সেই বন্ধ হয়ে যাওয়া ধারাবাহিক গুলোর মধ্যে এমন ধারাবাহিকও ছিল যেটি একসময় টিআরপি তালিকায় শীর্ষস্থান দখল করত।

প্রসঙ্গত ধারাবাহিক বন্ধের সাথে সাথে বেশ কিছু নতুন ধারাবাহিকও এসেছে কিন্তু যেসব ধারাবাহিকগুলি বন্ধ হয়ে গেল সেগুলির খবরই বেশি চোখে এসেছে। বর্তমানে কিছু ধারাবাহিক রয়েছে যেগুলির মাত্র দু মাস যেতে না যেতেই জনপ্রিয়তা হারিয়ে যাচ্ছে। আর তার মধ্যে এমন বেশ কিছু ধারাবাহিকও রয়েছে যেগুলি বছরের পর বছর মানুষের কাছে জনপ্রিয় হয়ে রয়েছে।

খড়কুটো – প্রসঙ্গত সৌজন্য এবং গুনগুনের জুটিকে দর্শক দারুন পছন্দ করেছিল এই ধারাবাহিকের। প্রথম থেকেই এক অন্য ধারার গল্প নিয়ে এসেছিল ‘খড়কুটো’। যেখানে একটি যৌথ পরিবারের গল্প ছিল যা দর্শকের মন ছুয়ে গিয়েছিল। আর সেই জনপ্রিয়তা নিয়েই প্রায় দু বছর মানুষের মনে জায়গা করে রেখেছিল এই ধারাবাহিক।

গাঁটছড়া- স্টার জলসার একটি জনপ্রিয় ধারাবাহিক হল ‘গাঁটছড়া’। এই ধারাবাহিকের মাধ্যমে খড়ি এবং ঋদ্ধির জুটিকে দর্শক অনেক ভালোবাসা দিয়েছে। একটা সময় জি বাংলার জনপ্রিয় ধারাবাহিক ‘মিঠাই’ এর সঙ্গে রীতিমতো টক্কর দিত টিআরপি তালিকায়। বর্তমানে এই ধারাবাহিক রমরমে চলছে স্টার জলসায়।

ধুলোকণা – লীনা গাঙ্গুলীর এই ধারাবাহিকের মাধ্যমে দর্শকের চোখে ফুলঝুরি এবং লালনের জুটি একেবারে অন্য মাত্রায় জনপ্রিয়তা পেয়েছিল। টিআরপি তালিকায় খারাপ ফল হওয়ার সাথে সাথে এই ধারাবাহিকটি চেষ্টা করেছিল যাতে তাদের ফল আবার ভালো করা যায়। কখনো ভালো আবার কখনো খারাপ এই নিয়ে গোটা দেড় বছর চলেছিল টিভির পর্দায় এই ধারাবাহিক।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button