Bangla Serial

Dhulokona: পরকীয়া হতে হতেও হলো না! হতে চলেছে লালু-ফুলুর ডিভোর্স! আসছে ফুলঝুরির নতুন প্রেমিক…

লীনা গাঙ্গুলীর লেখা চিত্রনাট্য মানেই তা সম্মুখীন হবে বিতর্কের এ আর নতুন কী! লীনা লেখেন এক, শুরুটা হয় সেইভাবে কিন্তু পরিণত হয় অন্য কিছুতে।তবে স্টার জলসায় সম্প্রচারিত ধারাবাহিক ‘ধুলোকণা’ নিয়ে প্রথম থেকেই সিরিয়ালের দর্শকদের মনে অনেক আশা ছিল। ফলে শুরু থেকেই টিআরপি খুব ভাল ছিল।

কিন্তু বর্তমানে টিআরপি ভালো হলেও ‘ধুলোকণা’-র কণামাত্রও মন থেকে মেনে নিতে পারছে না দর্শকদের একাংশ। উপরন্তু সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ছে একের পর এক কটুক্তি এবং সমালোচনা।

সিরিয়াল শুরু হওয়ার সময় লীনা জানিয়েছিলেন সমাজের অবহেলিত শ্রেণীর গল্প তুলে ধরতে চলেছেন তিনি। কিন্তু এখন আর গল্পে সেইসব কিছু নেই বর এখন ঠাঁই পেয়েছে বিয়ে। বরং সেই গল্প থেকে সরে গিয়ে বর্তমানে নায়ক নায়িকা লালন এবং ফুলঝুরি বিভ্রান্ত তাদের বিয়ে নিয়ে এবং দাম্পত্য জীবন নিয়ে।

একই ধারাবাহিকে পরপর তিনবার বিয়ে হয়েছে লালনের। এর মাঝখানে আবার হারিয়ে গিয়েছিল তার স্মৃতি। বেঁচে ফিরে আসতেই আবার সে অন্য মেয়ের প্রেমে পড়ল। লালন, তিতিরের সিঁথিতে লিপস্টিক লাগিয়ে সিঁদুরদান করছে। এই পরকীয়া বিয়ে আর লিপস্টিক বিয়ে নিয়ে রীতিমতো শোরগোল তুঙ্গে।

তারপরে দর্শকরা আরো বেশি রেগে গেল এটা দেখে যে স্মৃতি ফিরে এলেও তিতিরের প্রতি লালনের টান দেখে ফুলঝুরি বিরক্ত। এখন দর্শকরা মনে মনে ভাবছে হয়তো এবার সতীন হবে তিতির। কিন্তু এবার ধারাবাহিক একটা নতুন চমক আসছে কারণ ইতি মধ্যেই ফুল মুক্তি চেয়েছে লালুর কাছে। লালনের দাবি, সে তিতির ও ফুলঝুরি দুজনকেই ভালোবাসে। আর এটা সে অকপটে স্বীকার করে নিয়েছে।


এতকিছুর পরে সিরিয়াল ইতিমধ্যেই দর্শকদের কাছ থেকে ফালতু আখ্যা পেয়েছে। লালনকে চরিত্রহীন বলতেও আটকায়নি কারুর। আর এবার অনেকেই দাবি করছে লালনকে উচিত শিক্ষা দেওয়ার জন্য গল্পে ফুলঝুরির একটা নতুন প্রেমিক আসা উচিত।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button